১০:৪৮ এএম | টাঙ্গাইল, সোমবার, ২০ মে ২০১৯
প্রতিষ্ঠাতা মরহুম আব্দুল ওয়াহেদ মিয়া

আ’লীগ নেতা ফরিদ হত্যাকান্ডের এক বছর

জামিনে বের হয়েই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সম্পাদক!

বিশেষ প্রতিনিধি | টাঙ্গাইল২৪.কম | মঙ্গলবার, ৫ ডিসেম্বর ২০১৭ | | ৫০৩৪
, টাঙ্গাইল :

টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক রকিবুল ইসলাম ফরিদ হত্যাকান্ডের এক বছর পূর্ন হচ্ছে বুধবার। অথচ এই হত্যাকান্ডের মামলার স্বীকারোক্তি দেওয়া আসামীরা হাইকোর্ট থেকে জামিনে বের হয়ে বীরদর্পে ঘুরে বেড়াচ্ছেন এলাকায়।

এরই মধ্যে মামলার অন্যতম আসামী উপজেলার অলোয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সরকার সম্প্রতি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন।

অন্যদিকে হত্যার এক বছর অতিবাহিত হলেও এখনও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

গত ২০১৬ সালের ৬ ডিসেম্বর উপজেলা সাবেক আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রকিবুল ইসলাম ফরিদকে হত্যা করে লাশ তার বাড়ির পুকুরে ফেলে রাখে। পরে হত্যার ঘটনায় উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ও জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল হামিদ ভোলা মিঞা, আরেক যুগ্ম আহবায়ক তাহেরুল ইসলাম তোতা ও অলোয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সরকারসহ কয়েকজনের নাম উলে­খ ও অজ্ঞাত কয়েকজনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন নিহত ফরিদের ভাই ফজলুল করিম।

বর্তমানে হত্যা মামলাটি তদন্ত করছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

গণমাধ্যমে খবর প্রকাশের পর নড়ে চড়ে বসে ডিবি পুলিশ। গত ২৫ মার্চ গ্রেফতারকৃত আসামী তাহেরুল ইসলাম তোতা ও নূরুল ইসলাম সরকার আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয়।

এর আগে গ্রেফতারকৃত অন্য আসামী ভারই গ্রামের মাইনুল হাসান, শওকত হোসেন, নাসির উদ্দিন রানা ও অলোয়া ইউপি সদস্য মকবুল হোসেন তরফদার এই হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বাীকার করে আদালতে জবানবন্দি দেয়।

টাঙ্গাইলের বিচারিক হাকিম আদালতে জৈষ্ঠ্য হাকিম রূপম কান্তি দাশ আসামীদের জবানবন্দী লিপিবদ্ধ করেন।

অপরদিকে এজাহারভুক্ত আসামী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুুগ্ম আহবায়ক ও জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল হামিদ ভোলা মিঞা, রফিকুল ইসলাম লিখন, ছানোয়ার হোসেন, খোকন মিয়াসহ অন্যান্য আসামীদের পুলিশ আজও গ্রেফতার করতে পারেনি।

নিহত ফরিদের ভাই ও মামলার বাদী ফজলুল করিম জানান, এক বছর অতিবাহিত হলেও এখনও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। এর আগে গ্রেফতার হওয়া আসামীরা আদালতে জবানবন্দি দিলেও তারা জামিনে বের হয়ে এসে মামলা তুলে নিতে চাপ প্রয়োগ করছে। হত্যা মামলার অন্যতম আসামী নুরুল ইসলাম সরকার অলোয়া ইউনিয়নের সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছে। আরেক আসামী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ও জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল হামিদ ভোলা মিঞাকে দীর্ঘদিনেও গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

তিনি আরো বলেন, ভাইয়ের হত্যার বিচার নিয়ে সংঙ্কায় আছি। এছাড়াও পূর্বে আসামীদের লোকজন আমাদের পরিবারের উপর হামলা চালিয়েছে। তারা প্রভাবশালী হওয়ায় আমাদের হুমকি দিয়ে যাচ্ছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা টাঙ্গাইল জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) অশোক কুমার সিংহ জানান, খুব শীগ্রই ফরিদ হত্যা মামলার প্রতিবেদন দাখিল করা হবে। এছাড়া পলাতক আসামীদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন...

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে অ‌বৈধ স্থাপনা উ‌চ্ছেদ আন্তঃজেলা ডাকাত দলের ৩ সদস্য গ্রেফতার ইউএনও'র বিরুদ্ধে করা সেই মামলাটি প্রত্যাহার করলেন বাদীর কুমুদিনী হাসপাতাল খেয়াঘাটে বাঁশের সাঁকো ভেঙ্গে জনদুর্ভে সংস্কারের নামে ঐতিহ্যবাহী মাঠের টাকা লুটের অভিযোগ ঘাটাইলে সরকারী ভাবে ধান ও চাল সংগ্রহ শুরু বিটেকের সাবেক শিক্ষার্থীদের ইফতার মাহফিল  দেশে প্রয়োজনের বেশি ধান চাষ হচ্ছে : কৃষিমন্ত্রী নদীর বেইলী ব্রিজ দেবে যান চলাচল বন্ধ ঝড়ে লন্ডভন্ড ঘরবাড়ি বিড়ি শিল্প রক্ষার্থে আঞ্চলিক সমাবেশ ও মানববন্ধন নগর নাট্যদলের দোয়া ও ইফতার মাহফিল বিভিন্ন রেস্তরায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান অর্থদন্ড মেয়ের লাশের ছবি দেখে সনাক্ত করলেন মা ১ হাজার ৪০ টাকা মণে ধান সংগ্রহ শুরু

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

নির্মান ও ডিজাইন : মঈনুল ইসলাম, পাওয়ার বাই: জিরোওয়ানবিডি